রেজি তথ্য

আজ: শুক্রবার, ১২ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ২৮শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ ৬ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

ভোটাধিকার রক্ষার সংগ্রামে ঝাঁপিয়ে পড়ুন – ডা: শাহাদাত হোসেন 

ইসমাইল ইমন:

চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির আহবায়ক ডা. শাহাদাত হো‌সে‌ন বলেছেন, নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে এবং জনগণের প্রত্যক্ষ অংশগ্রহণের মাধ্যমে আগামী জাতীয় নির্বাচন দিতে হবে। ভোটাধিকার প্রয়োগের মাধ্যমে গণতন্ত্র পুনর প্রতিষ্ঠিত করতে হবে। ভোটাধিকার রক্ষার সংগ্রামের ঝাঁপিয়ে পড়ুন। ভোটাধিকার সাংবিধানিক অধিকার। এটা কোন বিএনপি’র একার দাবী নয়। এটা সারা বাংলাদেশের মানুষের দাবী। এটা জনগণের অধিকার। জনগণকে ফিরিয়ে দিতে হবে। যতদিন পর্যন্ত ভোটার অধিকার প্রতিষ্ঠিত হবে না, গণতন্ত্র ফিরে আসবে না, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া মুক্ত হবে না, নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন হবে না, ততদিন পর্যন্ত এদেশের মানুষ রাজপথ ছাড়বে না। এদেশের মানুষ স্বৈরাচার সরকারের দুর্নীতি দূঃশাসনের বিরুদ্ধে রাজপথে নেমে এসেছে। বিএনপি ১০ দফা দাবি আদায়ের লক্ষ্যে জনগণকে সাথে নিয়েই রাজপথে আছে এবং থাকবে।তিনি ৪ মার্চ , শনিবার, বিকালে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে কালা মিয়া বাজারস্থ অনন্ত বিলাস কমিউনিটি সেন্টার এর সমূহে বাকলিয়া থানা বিএনপির ও অঙ্গ সংগঠনের উদ্যোগে আয়োজিত পদযাত্রা উদ্বোধন কালের প্রধান অতিথির বক্তব্যে কথা বলেন ডা. শাহাদাত হোসেন আরো বলেন, আজ দেশের মানুষ অসহায়। রমজান আসার আগেই নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য থেকে সবকিছুই আজ ঊর্ধ্বমুখি। সবকিছু আজ সরকারের নিয়ন্ত্রণের বাইরে। সরকার সম্পূর্ণভাবে ব্যর্থ হয়েছে। মাছ-মাংসের মূল্য দ্বিগুণ হয়েছে। ১৪০ টাকার বয়লার মুরগি ২৪৫-২৫০ টাকা। সবকিছুই আজ মানুষের নাগালের বাইরে। নিয়ন্ত্রণহীনভাবে চলছে দুর্নীতি সমৃদ্ধ বাংলাদেশ। বাজার মনিটরের সরকারের কোন উদ্যোগ নেই। অন্যদিকে গ্যাস বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধিতে জনগণের না বিশ্বাস উঠেছে। গত এক মাসেই বিদ্যুতের তিন দফায় মূল্য বৃদ্ধি করা হয়েছে। জনগণের নির্বাচিত সরকার নয় বলেই এই সরকার জনগণের উপর অন্যায় ভাবে গ্যাস বিদ্যুতের মূল্য মূল্যবৃদ্ধি করে ছাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে।আবারো গত পহেলা ১ মার্চ থেকে বিদ্যুতের মূল্য বৃদ্ধি করে জনগণের উপর অতিরিক্ত মূল্য চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। এটা কোন গণতান্ত্রিক দেশের গণতান্ত্রিক সরকারের কার্য নয় এটা স্বৈরাচার সরকারের স্বৈরাচার কার্য ছাড়া আর কিছু নয় তাই এই স্বৈরাচার সরকারকে বিদায় নিতে দিতে হবে। আন্দোলন সংগ্রামের সবাইকে রাজপথে থাকতে হবে।বাকলিয়া থানা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি এম আই চৌধুরী মামুনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেন , সদস্য মোহাম্মদ আলী, অধ্যাপক নরুল আলম রাজু, নগর বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক হাজী মো:তৈয়ব, সৈয়দ আমিন মাহমুদ, ইব্রাহিম বাচ্চু, এসএম সেলিম, এ,কে,খান, ইউনুস চৌধুরী হাকিম, হাসেম সওদাগ, মোহাম্মদ শাহজাহান, খোরশেদ আলম, ইসমাইল বাবুল, আলী ইউসুফ, ১৯ নং ওয়ার্ড় বিএনপির সভাপতি হাজি নবাব খান, ১৭ নং ওয়ার্ড় বিএনপির সভাপতি মোহাম্মদ সেকান্দার, ১৮ নং ওয়ার্ড় বিএনপির সভাপতি আব্দুল্লাহ আল ছগির, সাধারণ সম্পাধক হাজী মুহাম্মদ মহিউদ্দিন, ইয়াকুব চৌধুরী নাজিম,হাজী ইমরান উদ্দিন, মোঃআলমগীর, আলী আজগর, খোরশেদ আলম, হাজী মোহাম্মদ ইউনুস, এ,টি,এম ফরিদ, এসএম পারভেজ, আরিফুল ইসলাম ডিউক, রৌশনগীর আমিন, মোঃ কামরুল ইসলাম, মুজিবুর রহমান, সাইফুল ইসলাম, যুবদল নেতা আসাদুর রহমান টিপু, ইসমাইল হোসেন লেদু, মোঃ মুসা, নুরুদ্দিন, স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা রিদওয়ানুল হক রিদু,ছাত্রদল নেতা মোঃ জাহাঙ্গীর, অপু, সানি প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।এর আগে চকবাজার থানা বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের উদ্যোগে পদযাত্রা কর্মসূচি উদ্বোধন করেন চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির আহবায়ক ডা. শাহাদাত হোসেন, থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নূর হোসেনের সভাপতিত্বে সাংগঠনিক সম্পাদক খায়রুজ্জামান জুনুর সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপি’র কেন্দ্রীয় শ্রম বিষয়ক সম্পাদক এম নাজিমুদ্দিন, বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির যুগ্ন আহ্বায়ক ইয়াসিন চৌধুরী লিটন,সদস্য কামরুল ইসলাম,নগর বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাইয়সার লাবু, মোহাম্মদ মহসিন, এমদাদুল হক বাদশা,এম এ হালিম বাবলু, আবুল ফয়েজ, নুরুল আলম শিপু প্রমুখ নেতৃবৃন্দ

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on pinterest
Pinterest
Share on reddit
Reddit

Discussion about this post

এই সম্পর্কীত আরও সংবাদ পড়ুন

আজকের সর্বশেষ

ফেসবুকে আমরা

সংবাদ আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১