রেজি তথ্য

আজ: মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ ১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ ১০ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

থানচিতে অগ্নিকাণ্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে আছে সরকার – বিজিবি 

থানচি প্রতিনিধি :
অনাকাঙ্খিত দুর্ঘটনায় সকলেরই পরিবারের জন্য আয় রোজগারের সব সম্বল হারিয়েছেন, হারানো যন্ত্রনা ও হারানো দ্রব্য আর ফিরে দেয়া সম্ভব নয় কিন্তু এ অগ্নিকাণ্ডের কষ্টের সময়ে সরকার আপনাদের পাশে আছে বলেন প্রধান অতিথি। শুক্রবার (২৪ মার্চ) দুপুরে থানচির বলিপাড়া ইউনিয়নের বলিবাজারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ বিতরণে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যের ৩৮ বিজিবি ব্যাটালিয়ন, বলিপাড়া জোন অধিনায়ক, লেফটেন্যান্ট কর্নেল খন্দকার মোঃ শরীফ-উল-আলম পিএসসি এসব কথা বলেন।
প্রধান অতিথি বলিপাড়া জোন অধিনায়ক বলেন, বিজিবি সীমান্তের আইন শৃংঙ্খলা রক্ষার পাশাপাশি মানবতার কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছে। অগ্নিকাণ্ডের মত দুর্যোগের দিনে আপনাদের পাশে এসে দাঁড়িয়ে এক সাথে মোকাবেলা করছি। অগ্নিকাণ্ডের ব্যাপারে আরো কঠোরভাবে সচেতন ও সর্তক অবলম্বন করতে হবে। যেন পুনঃবৃদ্ধি অগ্নিকাণ্ড না ঘটে। তিনি আরো বলেন, এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের পাশে থেকে সহযোগিতা করছি, পরবর্তীতে আরো সহযোগিতা করে যাবো। প্রশাসন, আইন শৃংঙ্খলার রক্ষাকারী বাহিনী ও সরকারের উপর আস্থা রাখুন ক্রমান্বয়ে আরো সহযোগিতা প্রদান করা হবে। এবং সকল ব্যবসায়ীদের বাজারে পাকা দোকান না হলেও সেমিপাকা দোকান নির্মাণের পরামর্শ দেন তিনি। থানচির বলিবাজার পার্শ্বর্বতী ৩৮ বিজিবি  ব্যাটালিয়ন হেডকোয়াটারের প্রাঙ্গণে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত ৫৩ দোকান মালিকদের প্রতি জনকে নগদ বিজিবি পক্ষে ৫ হাজার ও পার্বত্য মন্ত্রনালয়ের পক্ষে ৫ হাজার মোট ১০ হাজার টাকা, ২ বান করে রঙিন ঢেউটিন, এক বস্তা চাল, ডাল, তৈল, লবণ ইত্যাদি সহায়তা প্রদান করা হয়। এবং পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের পরিস্থিতির মোকাবেলা (জিআর) খাত, জেলা রেড ক্রিসেন্ট ইউনিট যৌথ অর্থায়নে বান্দরবান পার্বত্য জেলা পরিষদ ও ৩৮ বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) সহযোগিতায় ছিলেন। এসময় বলিপাড়া ৩৮ বিজিবি ব্যাটালিয়ানের হেডকোয়াটারের প্রাঙ্গনের ত্রান সামগ্রী বিতরণ ও আলোচনা সভায় বান্দরবান জেলা পরিষদের সদস্য বাশৈচিং চৌধুরী সভাপতিত্বে জেলা আওয়ামী লীগের নেতা গাব্রিয়াল ত্রিপুরা সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান থোয়াইহ্লামং মারমা, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুহাঃ আবুল মনসুর, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নুমেপ্রু মারমা, ৩৮ বিজিবি মেডিক্যাল অফিসার ক্যাপ্টেন মোঃ তসলিম ও বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটি বান্দরবান জেলা ইউনিট সেক্রেটারি অমল কান্তি দাস প্রমুখ। এছাড়াও প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়া সাংবাদিক, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, বিজিবি’র অন্যান্য কর্মকর্তা ও অগ্নিকাণ্ডের ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীগণ উপস্থিত ছিলেন।
Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn
Share on whatsapp
WhatsApp
Share on email
Email
Share on pinterest
Pinterest
Share on reddit
Reddit

Discussion about this post

এই সম্পর্কীত আরও সংবাদ পড়ুন

আজকের সর্বশেষ

ফেসবুকে আমরা

সংবাদ আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১